ভিকি-ক্যাটরিনার বিয়ের ছবি-ভিডিয়োর দাম ১০০ কোটি!

vikat

অপেক্ষা মাত্র এক দিনের। ধুমধাম করে সাত পাকে বাঁধা পড়বেন ভিকি কৌশল এবং ক্যাটরিনা কাইফ। শুক্রবার রাজস্থানে দুই তারকার সঙ্গীতানুষ্ঠান। বর-কনে দু’জনেরই নেচে মঞ্চ মাতিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা।

ইতিমধ্যে পরিবার সহ দুই তারকা দুটি উড়ে গিয়েছেন রাজস্থানে। এদিকে বিয়েতে চরম গোপনীয়তা রক্ষা করছেন বলিউড তারকা ভিকি কৌশল ও ক্যাটরিনা কাইফ। 

বিয়ের অনুষ্ঠানের কোনো ছবি-ভিডিও যাতে বাইরে ফাঁস না হয়, সেজন্য অতিথিদের নানা শর্ত দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছেন তারা।

বারওয়ারা সিক্স সেন্সেস ফোর্টে জুটির বিয়ে হবে তেমনটাই খবর। তিন দিনের বিয়ের অনুষ্ঠানে ৭ ডিসেম্বর হয়ে সংগীতের অনুষ্ঠান, ৮ ডিসেম্বর মেহেন্দি এবং ৯ ডিসেম্বর সাত পাকে বাঁধা পড়বেন এই তারকা জুটি। 

বিয়েতে মোট ১২০ জন অতিথি থাকবেন এবং ডবল ভ্যাকসিনেশন সার্টিফিকেট এবং আরটি-পিসিআর পরীক্ষার ভিত্তিতে তাদের প্রবেশের অনুমতি দেওয়া হবে। সাম্প্রতিক এক রিপোর্ট অনুযায়ী, ক্যাটরিনা এবং ভিকিকে একটি ওটিটি জায়ান্ট তাদের বিয়ের ফুটেজ স্ট্রিমিং করার জন্য বিপুল টাকা অফার করেছে।

ভারতীয় গণমাধ্যম পিঙ্কভিলার রিপোর্ট অনুযায়ী ঘনিষ্ঠ সূত্রে মারফত খবর, একটি অনলাইন সংস্থা নাকি ১০০ কোটি টাকার বিনিময়ে ভিকি ও ক্যাটরিনার বিয়ের ছবির স্বত্ব কিনে নিয়েছে। ‘পশ্চিমে সেলিব্রিটিদের তাদের বিয়ের ফুটেজ, ছবি ম্যাগাজিন এবং কখনও কখনও এমনকি চ্যানেলগুলিতে বিক্রি করা একটি সাধারণ প্রবণতা রয়েছে। কারণ প্রচুর অনুরাগীরা রয়েছেন যারা প্রিয় তারকার জীবনে ঘটা বিভিন্ন মুহূর্ত দেখতে উৎসুক। 

স্ট্রিমিং জায়ান্ট ভারতেও একই প্রবণতা আনতে এবং তাদের বিয়ের ফ্র্যাঞ্চাইজি চালু করার পরিকল্পনা করছে। তাই তারা ক্যাটরিনা কাইফ এবং ভিকি কৌশলকে ১০০ কোটি টাকা অফার করেছে’।

ভিকি-ক্যাটরিনা ওটিটি প্ল্যাটফর্মের প্রস্তাবে সায় দিয়েছেন কিনা, তা এখনও অস্পষ্ট। উল্লেখ্য, এর আগে দীপিকা এবং রণবীরকেও নাকি একই প্রস্তাব দিয়েছিল এই ওটিটি প্ল্যাটফর্ম। তবে তারকা জুটি এই মুহূর্তে নিজেদের বিয়ের ছবি এবং ভিডিয়ো ফাঁস করতে নারাজ। 

রাজস্থানের সিক্স সেন্সেস ফোর্ট বারওয়ারার বিয়ের আসরে আমন্ত্রিতরা প্রায় সকলেই হাইপ্রোফাইল। বিবাহের অতিথিদের একটি অ-প্রকাশনা চুক্তিতে স্বাক্ষর করার জন্য বলা হয়েছে। বিয়ে বাড়িতে ঢুকতে হলে জানাতে হবে সিক্রেট কোড, যা প্রত্যেক অতিথির জন্য ধার্য করা হয়েছে।

সুত্র-হিন্দুস্তান টাইমস

আমারসংবাদ/এডি