Amar Sangbad
ঢাকা বুধবার, ০৬ জুলাই, ২০২২, ২২ আষাঢ় ১৪২৯

‘নির্বাচন কমিশনার আশ্বাস দিচ্ছেন, ব্যবস্থা নিচ্ছে না’ 

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি 

জানুয়ারি ১৪, ২০২২, ০৯:১০ এএম


‘নির্বাচন কমিশনার আশ্বাস দিচ্ছেন, ব্যবস্থা নিচ্ছে না’ 

নারায়ণগঞ্জ সিটি কপোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী এড তৈমুর আলম খন্দকার বলেছেন, নারায়ণগঞ্জের জনগণ একজন যোগ্য প্রার্থীকে পেয়েছিল। তারা তাদের প্রার্থীকে নিয়ে মাঠে নেমেছিল। কিন্তু সরকারি দলের কিছু দায়িত্ব প্রাপ্ত লোক নৌকার পক্ষে ভোট চাইতে গিয়ে প্রতিনিয়ত উসকানি মূলক বক্তব্যে দিচ্ছে। তারা এক বক্তব্যে বলেন তৈমুর ঘুঘু দেখেছে ঘুঘুর ফাঁদ দেখেনি। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তৈমুর ঘুঘুর ফাঁদ দেখবে। এর পরই আমার সিদ্ধিরগঞ্জ থানার প্রধান নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সমন্বয় মনিরুল ইসলাম রবিকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। এ ছাড়াও আমার নির্বাচনী প্রচারণা, ব্যানার, ফেস্টুন লাগানোর সময় বিভিন্ন স্হান থেকে আমার নেতাকর্মীদের পুলিশ আটক করেছে। এমনকি প্রতি রাতে আমার নেতাকর্মীদের বাড়িতে বাড়িতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) সকালে নগরীর মিশনপাড়া এলাকায় তৈমুরের নির্বাচনী ক্যাম্পে এস সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি এসব কথা তুলে ধরেন। এসময় তৈমুর বলেন,আচরন বিধি লঙ্গনের ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনারকে বার বার বলা হচ্ছে। তারা শুধু আমাদের আস্বাশ দিচ্ছেন কিন্তু কোন কার্যকরী ব্যবস্হা নিচ্ছে না। 

এসময় তৈমুর বলেন, নগরের বিভিন্ন হোটেল, রেস্তোরাঁ, সার্কিট হাউজ গুলো সরকার দলীয় লোকেরা ব্যবহার করছেন। যা আইনানুসারে ব্যবহারের নিয়ম নাই। এটা আচরন বিধি লঙ্গন। 

তৈমুর বলেন, গতকাল রাতে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক ও এসপির সাথে গোপন বৈঠক করেছেন যা নির্বাচনের আগে এ ধরনের গোপন বৈঠক নির্বাচনের বিধিনিষেধে নেই। কারণ তিনি এই এখানকার ভোটার না। এটা আইনগত ভাবে অন্যায় মনে করি। 

এসময় তৈমুর আলম একটি অবাধ সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচন চেয়ে প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানান। 

এসময় নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটি এম কামাল, এডভোকেট আজিজুল রহমান মোল্লা, এড. শরিফুল ইসলাম শিপলুসহ বিএনপি বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের উপস্থিত ছিলেন। 

আমারসংবাদ/কেএস