সৌদিতে মাদকের বিশাল চোরাচালান জব্দ

প্রবাসীসহ সৌদি নাগরিক গ্রেপ্তার

জেদ্দা বন্দরে এমফেটামিন ট্যাবলেট এর একটি বিশাল চোরাচালান জব্দ করেছে সৌদি কাস্টমস কর্তৃপক্ষ । এই চালানে প্রায় ৮ লাখ ৮০ হাজার এমফেটামিন ট্যাবলেট পাচার করা হচ্ছিলো।

জেদ্দা ইসলামিক পোর্ট শুল্ক কর্মকর্তারা প্রায় ৮ লাখ ৮০ হাজার ক্যাপ্টাগন বড়ি পাচারের একটি প্রচেষ্টা ব্যর্থ করেছে যা নির্মাণের জন্য ব্যবহৃত পেস্টের চালানে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল।

গত শুক্রবার সৌদি প্রেস এজেন্সির এক প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে আরব নিউজে বলা হয়েছে, জাকাত, কর এবং শুল্ক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে চালানটি বিভিন্ন নিরাপত্তা পদ্ধতি ব্যবহার করে চোরাচালান করা হচ্ছিল। তবে অতীতের ন্যায় চোরাচালানের প্রচেষ্টা সফলভাবে প্রতিরোধ করতে সক্ষম হয়েছে।

কর্তৃপক্ষ আরো বলেছে, যে এটি সারাদেশে প্রবেশের পয়েন্টগুলিতে শুল্ক নিয়ন্ত্রণ কঠোর করা অব্যাহত রয়েছে।

সম্প্রতি, সৌদি আরবের সীমান্ত কর্মকর্তারা জিজান, নাজরান এবং আসির শহরে ৩৫২ কেজি হাশিশ এবং ৫৪ হাজার  ৩৬৮ কেজি কাট জব্দ করেছে।

বর্ডার গার্ডের মুখপাত্র লেফটেন্যান্ট কর্নেল মিসফার আল-কুরাইনি বলেছেন, অফিসাররা ৩০ জন সৌদি এবং ৩৩ জন বিদেশী নাগরিক সহ ৬৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে, যাদের মধ্যে ২৩ জন ইয়েমেনি এবং ১০ জন ইথিওপিয়ান নাগরিক রয়েছে।

সৌদি সরকার মাদক চোরাচালানকারীদের গ্রেপ্তার ও দোষী সাব্যস্তদের গ্রেপ্তার করার জন্য সঠিক তথ্যের জন্য আর্থিক পুরস্কারের প্রস্তাব ঘোষণা দিয়েছে।

জনসাধারণের জন্য ১৯১০ নাম্বার অথবা ০০৯৬৬১১৪২০৮৪১৭ নাম্বারে ডায়াল করে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।