সজলের জুলেখা প্রভা

ইউসুফ-জুলেখা মধ্যযুগের পুথি প্রণয়কাব্যটি প্রসঙ্গে প্রায় সবাই জানেন। তাদের প্রেমেও বিদিত। এবার জুলেখা নামে পাওয়া যাবে প্রভাকে। তবে তিনি ইউসুফের জুলেখা নন। গ্রাম্য মেয়ে জুলেখা। যাকে তার স্বামী গেঁয়ো, আনস্মার্ট ভাবে। ঠিক এভাবেই প্রভাকে দেখা যাবে ‘জুলেখা’ নাটকে। 

আসাদুজ্জামান সোহাগের রচনায় এটি পরিচালনা করেছেন সরদার রোকন। জুলেখার স্বামী আরিফ হিসেবে এতে অভিনয় করেছেন আবদুন নূর সজল। নাটকের গল্প এমন— আরিফ একটা কর্পোরেট অফিসের বড় অফিসার। সে যেমন শিক্ষিত, তেমনই মার্জিত। সে নতুন বিয়েও করেছে। নিজের অফিসের একটা প্রজেক্টের কাজে আরিফকে কক্সবাজার যেতে হবে। 

বিয়ের পর কোথাও যাওয়া হয়নি; তাই কী মনে করে সে নিজের স্ত্রীকে সঙ্গে নিতে চাইল। স্ত্রী জুলেখা অনিচ্ছা সত্ত্বেও স্বামীর সঙ্গে এখানে এসে পৌঁছায়। স্ত্রীকে সঙ্গে নিয়ে এসেছে ঠিকই, কিন্তু সমস্যা হলো বউকে নিয়ে তিনি কোথাও যেতে খুবই লজ্জা পান। কারণ কী! কারণ, স্ত্রী তার ভাষায় গেঁয়ো ও আনস্মার্ট।