শিশু আরাফাত হত্যার বিচারের দাবিতে উত্তাল বাউফল

শিশু আরাফাত (৮) হত্যা মামলার প্রধান আসামি জিকির উল্লাহ মল্লিক ও তার ভাই কাওসার মল্লিকের গ্রেপ্তারের দাবিতে সোমবার (৪ অক্টোবর) বেলা ১১টায় মানববন্ধ ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। কালাইয়া-নওমালা ও লোহালিয়া সড়কের মিল ঘর এলাকায় এ মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে আদাবাড়িয়া ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের কয়েক মানুষ অংশ গ্রহণ করেন। 

প্রায় ঘন্টা ব্যাপী মানববন্ধন শেষে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন  শাহাবুদ্দিন মেম্বার, বশির মোল্লা,  নিহত আরাফাতের বাবা হাসান প্যাদা, মা পারভিন বেগম ও মামা শামিম খান প্রমূখ। 

বক্তারা অভিলম্বে শিশু আরাফাত হত্যা মামলার প্রধান আসামি জিকির উল্লাহ মল্লিক ও তার ভাই  কাওসার মল্লিকসহ অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করেন।

উল্লেখ্য, গত ২২ আগস্ট আদাবাড়িয়া ইউনিয়নের হাজির হাট এলাকায় একটি মাদ্রাসার হেফজো বিভাগের ছাত্র আরাফাত পড়া না পারার কারণে ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ জিকির উল্লাহ ও তার ভাই কাওসার তাকে মারধর করে। একপর্যায়ে দেয়ালের সাথে মাথা আঘাত করে রক্তাক্ত জখম করে এবং বিনা চিকিৎসায় তাকে একদিন আটকে রাখে। পরের দিন আরাফাতের বাবা ও মা খবর পেয়ে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখান থেকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। এরপর তার অবস্থার আরও অবনতি হলে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ২৪ আগস্ট দিবাগত রাতে চিকিৎসাধিন অবস্থায় আরাফাত মারা যান। 

এ ঘটনায় আরাফাতের বাবা হাসান প্যাদা বাদি হয়ে পটুয়াখালী আদালতে একটি নালিশী পিটিশন করলে আদালত পিটিশনটি মামলা হিসাবে নেয়ার জন্য বাউফল থানায় ওসি আল মামুনকে নির্দেশ দেন। এ ঘটনার পর থেকে ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ জিকির উল্লাহ ও তার ভাই কাওসার পলাতক রয়েছেন।

আমারসংবাদ/কেএস