Amar Sangbad
ঢাকা বুধবার, ২৫ মে, ২০২২, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

টাঙ্গাইল-৭ আসনে এজেন্টদের বের করে দেয়ার অভিযোগ

মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি

জানুয়ারি ১৬, ২০২২, ০৯:১৫ এএম


টাঙ্গাইল-৭ আসনে এজেন্টদের বের করে দেয়ার অভিযোগ

টাঙ্গাইল-৭ আসনের উপনির্বাচনে সকাল ৮টা থেকে প্রথমবারের মতো ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। উপজেলার বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি খুবই কম লক্ষ করা গেছে।

রোববার (১৬ জানুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে টাঙ্গাইলের মির্জাপুর পৌরসদরের এস.কে পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে জাতীয় পার্টির প্রার্থী জহিরুল ইসলাম জহির সাংবাদিকদের অভিযোগ করে বলেন, লাঙ্গল মার্কার এজেন্টদের কেন্দ্রে থেকে বের করে দিচ্ছেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। এ ছাড়াও বেশ কয়েকটি কেন্দ্রে জোরপূর্বক নৌকা মার্কায় ভোট দিতে বলা হচ্ছে।

তবে জাতীয় পার্টির প্রার্থীর অভিযোগ অস্বীকার করে আওয়ামী লীগের প্রার্থী খান আহমেদ শুভ বলেন, সকাল থেকেই সুন্দর ও সুষ্ঠভাবে ভোট হচ্ছে। আশা করছি উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে স্বতষ্ফুর্তভাবে মির্জাপুরবাসী নৌকা প্রতীকে ভোট দিবেন।

এ দিকে এ আসনে ১২১টি কেন্দ্রের ৭৫৬টি কক্ষে প্রথমবারের মতো ইভিএম’এ ভোট হচ্ছে।  নিরাপত্তা নিশ্চিতে ভোটকেন্দ্রগুলোতে ৮ ম্যাজিস্ট্রেট, ০১ জন জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ছাড়াও মোতায়েন রয়েছে র‌্যাব, পুলিশ, বিজিবি, আনসার। ৫৭টি গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে কড়া নিরাপত্তা জোড়দার করা হয়েছে। যেকোনো ধরণের সহিংসতা ঠেকাতে বিভিন্নস্তরে সাজানো হয়েছে পুলিশ বাহিনী।

টাঙ্গাইল জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এইচ.এম কামরুল হাসান সাংবাদিকদের বলেন, ভোটার উপস্থিতি কম হলেও নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ হচ্ছে। তবে বেলা বাড়ার সাথে সাথে ভোটার উপস্থিতি বাড়বে বলে তিনি ধারণা করেন। কোন প্রার্থী এখন পর্যন্ত অভিযোগ করেননি।

প্রসঙ্গত, টাঙ্গাইল ৭ আসনে ভোট ভোটার সংখ্যা ৩ লক্ষ ৪০ হাজার ৩৭৯ জন। এদের মধ্যে নারী ভোটার সংখ্যা ১ লক্ষ ৭০ হাজার ৫০১ জন ও পুরুষ ভোটার সংখ্যা ১ লক্ষ ৬৯ হাজার ৮৭৮ জন। যাদের মধ্যে ৫ জন তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন। গত ১৬ নভেম্বর এই আসনের টানা চারবারের এমপি একাব্বর হোসেনের ইন্তেকালের পর আসনটি শুণ্য ঘোষিত হয়।

আমারসংবাদ/কেএস