Amar Sangbad
ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১১ আগস্ট, ২০২২, ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯

সূচকের বড় পতনে মূলধন কমেছে ১৫ হাজার কোটি 

নিজস্ব প্রতিবেদক

নভেম্বর ২৭, ২০২১, ১২:৪৫ পিএম


সূচকের বড় পতনে মূলধন কমেছে ১৫ হাজার কোটি 

বড় পতনের মধ্য দিয়ে সপ্তাহ পার করেছে দেশের পুঁজিবাজার। এতে প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) বাজার মূলধন প্রায় ১৫ হাজার কোটি টাকা কমে গেছে। এর আগে টানা দুই সপ্তাহে বাজার মূলধন সাড়ে ৯ হাজার কোটি টাকা বাড়ে। সে হিসেবে দুই সপ্তাহে যে পরিমাণ বাজার মূলধন বেড়েছিল, এক সপ্তাহেই তার থেকে বেশি কমলো। মূলধন কমার পাশপাশি সবকটি মূল্যসূচক কমেছে। সেই সঙ্গে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ।

বাজার পর্যালোচনা করে দেখা যায়, সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস লেনদেন শুরুর আগে ডিএসইতে বাজার মূলধন ছিল ৫ লাখ ৬১ হাজার ৭৮ কোটি ৫৬ লাখ ১৭ হাজার ৫৬২ টাকায়। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় ৫ লাখ ৪৬ হাজার ৯৭ কোটি ৩৫ লাখ ৬৭ হাজার ৮৭৮ টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে বিনিয়োগকারীরা ১৪ হাজার ৯৮১ কোটি ২০ লাখ ৪৯ হাজার ৬৮৪ টাকা বা ২.৬৭ শতাংশ বাজার মূলধন হারিয়েছে।

বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ছয় হাজার ৩০৬ কোটি ২৫ লাখ ৫ হাজার ১৭ টাকার লেনদেন হয়েছে। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ছয় হাজার ৯৯২ কোটি ৬১ লাখ ৮৪ হাজার ৮৮৮ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে লেনদেন ৬৮৬ কোটি ১ লাখ ১৩ হাজার ৮৭১ টাকা বা সাড়ে ১০ শতাংশ কমেছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ২৩৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ছয় হাজার ৮৫৩ পয়েন্টে। অপর সূচকগুলোর মধ্যে শরিয়াহ সূচক ৩৭ পয়েন্ট এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৯২ পয়েন্ট  কমে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে এক হাজার ৪৪২ পয়েন্টে এবং দুই হাজার ৬০২ পয়েন্টে।

বিদায়ী সপ্তাহে ডিএসইতে মোট ৩৮০টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ৪৯টির বা ১২.৮৯ শতাংশের, কমেছে ৩১৩টির বা ৮২.৩৭ শতাংশের এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৮টির বা ৪.৭৪ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর।

অপরদিকে,  চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) বিদায়ী সপ্তাহে টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ২৬১ কোটি ৯২ লাখ ১৮ হাজার ৪৬০ টাকার। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ২৫২ কোটি ১১ লাখ ৫০ হাজার ৩৭০ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে লেনদেন ৯ কোটি ৮০ লাখ ৬৮ হাজার ৯০ টাকা বা ৪ শতাংশ বেড়েছে।

সপ্তাহটিতে সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৬৬৫ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ২০ হাজার ৫৮.১২ পয়েন্টে। সিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে সিএসসিএক্স ৩৯৯ পয়েন্ট , সিএসই-৩০ সূচক ৪৩২ পয়েন্ট , সিএসই-৫০ সূচক ৫০  এবং সিএসআই ৩১ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ১২ হাজার ৬০ পয়েন্টে, ১৪ হাজার ১১৩ পয়েন্টে, এক হাজার ৫২৫ পয়েন্টে এবং সিএসআই এক হাজার ২২৮ পয়েন্টে।

সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে ৩৩৯টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ৫৫টির বা ১৬.২২ শতাংশের দর বেড়েছে, ২৭০টির বা ৭৯.৬৫ শতাংশের কমেছে এবং ১৪টির বা ৪.১৩ শতাংশের দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

আমারসংবাদ/আরএইচ