community-bank-bangladesh
Amar Sangbad
ঢাকা সোমবার, ১৭ জুন, ২০২৪,

জবির ৪৭ শিক্ষার্থী পাচ্ছেন ডিনস অ্যাওয়ার্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক

নিজস্ব প্রতিবেদক

মে ২২, ২০২৪, ০৮:৩৫ পিএম


জবির ৪৭ শিক্ষার্থী পাচ্ছেন ডিনস অ্যাওয়ার্ড

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) স্নাতকে (সম্মান) সর্বোচ্চ ফলাফল অর্জনের স্বীকৃতি স্বরূপ প্রথমবারের মতো ডিনস অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত হয়েছেন ৪৭ জন শিক্ষার্থী। বিশ্ববিদ্যালয়ের সাতটি অনুষদের ৩৯টি বিভাগের চার বছর মেয়াদি স্নাতক চূড়ান্ত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ সর্বোচ্চ মেধাবীদের জন্য এ অ্যাওয়ার্ড চালু হয়েছে।

বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞান অনুষদের ডিন ও ডিনস অ্যাওয়ার্ড কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক মো. শাহজাহান আমার সংবাদকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বিজ্ঞান অনুষদের ডিন বলেন, আমরা শুরুতে সর্বশেষ তিনটা শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের এটি দেওয়ার জন্য কাজ করেছি। কিন্তু ফলাফল বিলম্ব হওয়ায় ২০১৬-১৭ ও ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষকে চূড়ান্ত করেছি। এবার সর্বমোট ডিনস অ্যাওয়ার্ড নীতিমালা অনুযায়ী ৪৭ জনকে আমরা মনোনীত করেছি। যদিও প্রতি বিভাগ থেকে একজন করে এ অ্যাওয়ার্ড পাওয়ার কথা।

তিনি আরও বলেন, আগামী ৬ জুন অনুষ্ঠানের মধ্যদিয়ে এ অ্যাওয়ার্ড প্রদানের কথা রয়েছে। শিক্ষার্থীদের জন্য অ্যাওয়ার্ড হিসেবে আমরা একটি সার্টিফিকেট ও মেডেলের ব্যবস্থা করেছি। যা তাদের পরবর্তী শিক্ষাজীবনে অনুপ্রেরণা ও চাকরির বাজারে কাজ এগিয়ে রাখবে।

নীতিমালা অনুযায়ী, বিশ্ববিদ্যালয়য়ের সব অনুষদের আওতাধীন প্রতিটি বিভাগ থেকে স্নাতক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ সর্বোচ্চ সিজিপিএ অর্জনকারী একজন করে শিক্ষার্থী এ অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত হবেন, যা বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মিত শিক্ষার্থীদের প্রদান করা হবে। এ অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত হতে হলে স্নাতক চূড়ান্ত পরীক্ষায় ন্যূনতম সিজিপিএ ৩.৭৫ থাকতে হবে। একই বিভাগে একাধিক শিক্ষার্থী সমান সিজিপিএ অর্জন করলে, তাদের প্রথম থেকে অষ্টম সেমিস্টার পর্যন্ত প্রাপ্ত মোট নম্বর বিবেচনা করা হবে। এরপরও সমতা থাকলে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল বিবেচনা করে চূড়ান্ত প্রার্থী মনোনয়ন পাবেন।

এছাড়া প্রতিটি বিভাগের সর্বোচ্চ সিজিপিএ অর্জনকারী শিক্ষার্থী এ অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনয়নের ক্ষেত্রে স্নাতক শ্রেণির কোনো সেমিস্টারে রিটেক ও পুনঃভর্তি থাকতে পারবেন না। কোনো কোর্সে মানোন্নয়ন ও সাপ্লিমেন্টারি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ থাকতে পারবেন না। কোনো সেমিস্টার পরীক্ষায় এক বা একাধিক কোর্সে ‘এফ’ গ্রেড থাকা যাবে না। এছাড়া প্রতিটি সেমিস্টারে শতকরা ৮০ ভাগ উপস্থিতিসহ স্নাতক অধ্যায়নকালে কোনো প্রকার আর্থিক, অ্যাকাডেমিক অথবা শৃঙ্খলা বিষয়ক শাস্তিপ্রাপ্ত হওয়া যাবে না।

এসব মানদণ্ড বিবেচনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৬-১৭ ও ২০১৭-১৮ দু’টি শিক্ষাবর্ষ মিলিয়ে কলা অনুষদ থেকে নয়জন, বিজ্ঞান অনুষদ থেকে ছয়জন, ব্যবসায়ী শিক্ষা অনুষদ থেকে আটজন, সামজিক বিজ্ঞান অনুষদ থেকে সাতজন, আইন অনুষদ থেকে দুইজন, লাইফ অ্যান্ড সায়েন্স অনুষদ থেকে ১৩ জন এবং চারুকলা অনুষদ থেকে দুইজনকে দেওয়া হবে এ অ্যাওয়ার্ড।

ডিনস অ্যাওয়ার্ড সম্পর্কে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম বলেন, আমরা ডিনস অ্যাওয়ার্ডের জন্য সবকিছু চূড়ান্ত করেছি। ঈদের পরে শিক্ষার্থীদের অভিভাবক সহ জমকালো আয়োজনের মধ্যদিয়ে তাদের এটি প্রদান করা হবে। সেই সঙ্গে আমরা একজন মোটিভেশনাল স্পিকার নিয়ে আসার জন্য চেষ্টা করছি।

আরএস

Link copied!