community-bank-bangladesh
Amar Sangbad
ঢাকা সোমবার, ২৪ জুন, ২০২৪,

শান্তিগঞ্জে ঢিলেঢালা হরতাল, সতর্ক অবস্থানে পুলিশ: গ্রেপ্তার ৫

শান্তিগঞ্জ (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি

শান্তিগঞ্জ (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি

অক্টোবর ২৯, ২০২৩, ০৬:৫২ পিএম


শান্তিগঞ্জে ঢিলেঢালা হরতাল, সতর্ক অবস্থানে পুলিশ: গ্রেপ্তার ৫

শান্তিগঞ্জ উপজেলায় বিএনপি-জামায়াতের ডাকা হরতাল ঢিলেঢালাভাবে পালিত হয়েছে। সকাল থেকে সিলেট-সুনামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কে সিএনজি, লেগুনা, পিকআপ ভ্যান, যাত্রীবাহী বাসসহ বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করতে দেখা যায়। তবে অন্যান্য দিনের তুলনায় তা ছিলো খুবই কম। এদিকে, হরতালকে সফল করতে সকালে পিকেটিংয়ে বের হলে বিএনপির ৫ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে শান্তিগঞ্জ থানা পুলিশ। রোববার (২৯ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১০টায় শান্তিগঞ্জ উপজেলার পাগলা বাজারে হরতালের সমর্থনে পিকেটিংকালে তাদের আটক করে পুলিশ।

এদিন সকাল থেকে দিনব্যাপী উপজেলার বিভিন্ন জায়গায় সতর্ক অবস্থানে ছিলো পুলিশ প্রশাসন। বিশেষ করে উপজেলার পাগলা বাজারে পুলিশের ব্যপক তৎপরতা লক্ষ করা যায়। পিকেটিংয়ের সময় গ্রেফতারকৃতরা হলেন, শান্তিগঞ্জ উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক সুহেল মিয়া, উপজেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব শাহাদাত হোসেন কামরান, সিনিয়র যগ্ম-আহ্বায়ক ওবায়দুল করিম মাসুম ও ছাত্রদল নেতা আবু তাহের ইমন। আরেকজনের নাম জানা যায়নি। তারা প্রত্যেকেই কেন্দ্রিয় যুবদলের সাবেক সহ-সভাপতি ও সুনামগঞ্জ জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি আনছার উদ্দিনের অনুসারী বলে জানা গেছে।

রবিবার দিনব্যাপী উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, হরতাল অমান্য করে সিলেট-সুনামগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কে ছোট ছোট যানবাহন চলাচল করছে৷ তবে সংখ্যায় তা অন্যান্য দিনের তুলনায় কম। এ সুযোগে বেশি ভাড়া আদায় করেছেন চালক-হ্যাল্পারেরা। আভ্যন্তরিন সড়কগুলোতে যানচলাচলে তেমন কোনো প্রভাব লক্ষ করা যায়নি। উপজেলার পাথারিয়া, দিরাই রাস্তার মুখ, পাগলা বাজারে পুলিশের সতর্ক অবস্থান ছিলো লক্ষনীয়।  পিকেটিং করতে আসা লোকদের দাঁড়াতে দেয়নি পুলিশ। হরতালের নামে নাশকতা ঠেকাতে ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এ ব্যপারে সুনামগঞ্জ জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি আনছার উদ্দিন ও শান্তিগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বলেন, হরতাল আমাদের সাংবিধানিক অধিকার। কেন্দ্রিয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে আমার নেতাকর্মীরা শান্তিপূর্ণভাবে পিকেটিং করে যাচ্ছিলেন। এঅবস্থায় তাদের আটক করা অসাংবিধানিক। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও তাদের অবিলম্বে মুক্তি দিতে পুলিশ প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি। পুলিশ দিয়ে আন্দোলন দমিয়ে রাখা যাবে না। যত বেশি নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করা হবে আমাদের মনোবল ততই বাড়বে।

যুবদল-ছাত্রদলের ৫ নেতাকর্মীকে আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে শান্তিগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. খালেদ চৌধুরী বলেন, হরতালের নামে নৈরাজ্য ঠেকাতে এবং জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থেই তাদের আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা রুজু করা হবে।

আরএস

Link copied!