Amar Sangbad
ঢাকা মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৪,

জাতীয় ক্রিকেট দলে খেলার স্বপ্ন দেখছেন জুড়ীর রিয়াজ

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

মার্চ ২০, ২০২৪, ০৩:৩৬ পিএম


জাতীয় ক্রিকেট দলে খেলার স্বপ্ন দেখছেন জুড়ীর রিয়াজ

মৌলভীবাজারের জুড়ীর রিয়াজ ডানহাতি বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের নেট বোলার হিসেবে অনেক আগেই জায়গা করে নিয়েছেন। এখন তিনি স্বপ্ন দেখছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের হয়ে ভাল কিছু করার।

পুরো নাম মাহমুদুল হাসান রিয়াজ চৌধুরী। রিয়াজ জুড়ী উপজেলার পশ্চিম জুড়ী ইউনিয়নের বাছিপুর গ্রামের আবুল কাশেম ও সেলিনা বেগম দম্পতির  ছেলে। পাঁচ ভাই  বোনের মধ্যে রিয়াজ দ্বিতীয়।

ছোটবেলা থেকেই ক্রিকেটের প্রতি তার বেশ আগ্রহ ছিল। উপজেলার স্থানীয় বাছিরপুর ক্রিকেট একাদশে ক্রিকেট শুরু করেন। পরে নতুন কুড়ি ক্রিকেট একাদশ এবং শাহজালাল স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে ক্রিকেটে একক আধিপত্য ধরে রাখেন।

ক্রিকেট খেলার পাশাপাশি রিয়াজ সমানতালে লেখাপড়া  চালিয়ে যাচ্ছেন। ২০১৭ সালে জুড়ী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি, ২০১৯ সালে জুড়ী টিএন খানম ডিগ্রি কলেজ থেকে এইসএসসি শেষ করে বর্তমানে ঢাকায় আলহাজ্ব মকবুল হোসেন বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স করছেন।

ডানহাতি বোলার রিয়াজ ব্যাটিং ও ফিল্ডিং এ অলরাউন্ডার। বর্তমানে ছুটিতে থাকাবস্থায় প্রতিদিন ১০ ওভার করে দুই ঘণ্টা অনুশীলন করেন। রিয়াজ ২০১৮ সালে ক্রিকেট বলে অনুশীলন শুরু করেন এবং ২০২২ সালে ঢাকা ক্রিকেট লীগের হয়ে মাঠে নামেন। ২০২৩ সালে বিপিএলে সিলেট স্টাইকার্স এর নেট বোলার ছিলেন। ২০২৪ সালে ফরচুন বরিশালের নেট বোলার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মেহেদি হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ, তাওহীদ হৃদয় ও তানজিম শাকিবের মতো ক্রিকেটারদের সাথে রিয়াজের অনুশীলন ও প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার সুযোগ হয়েছে।  

রিয়াজ আমার সংবাদকে বলেন, ক্রিকেটের পিছনে তার পিতা মাতা ও ভাই বোনেরা সব চেয়ে বেশি অনুপ্রেরণা দিয়েছেন। পরিবারের সহযোগিতা থাকায় পুলিশের চাকরি ছেড়ে দিয়ে ক্রিকেটকে বেছে নিয়েছেন। জাতীয়  ক্রিকেট  লীগের  কোচ এহসান,  আম্পায়ার রাকিবুল ইসলাম সোহাগ এবং জিম মাস্টার দেবাশীষ দেবু তাকে অনেক সহযোগিতা করেছেন বলে জানান।  

রিয়াজের রড় ভাই হাফেজ জয়নাল আবেদীন হৃদয় চৌধরী বলেন, ক্রিকেটের প্রতি রিয়াজের আগ্রহ দেখে তিনি লেখা পড়া ছেড়ে দিয়ে পরিবারের হাল ধরতে প্রবাসে চলে যান।

রিয়াজের বাবা আবুল কাশেম ও মা সেলিনা বেগম বলেন,   ক্রিকেটের জন্য সে পুলিশের চাকরি পর্যন্ত ছেড়ে দিয়েছে। অনেক প্রতিকূলতা অতিক্রম করে এগিয়ে যাচ্ছে। রিয়াজ একদিন ভাল ক্রিকেটার হয়ে দেশের সুনাম বয়ে আনবে। তারা তাদের সন্তানের জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও মৌলভীবাজার-২ আসনের সংসদ সদস্য শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল বলেন, ক্রিকেটার  রিয়াজ আমাদের এলাকার ছেলে সে যদি সম্ভাবনাময় হয় তাকে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে।

ইএইচ

Link copied!