Amar Sangbad
ঢাকা সোমবার, ০৪ মার্চ, ২০২৪,

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের পরীক্ষা দিতে গিয়ে কারাগারে তরুণী

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২৪, ০৬:৪৮ পিএম


মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের পরীক্ষা দিতে গিয়ে কারাগারে তরুণী

উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের হয়ে পরীক্ষা দিতে গিয়ে কারাগারে তরুণী চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গার মহিলা কলেজে পরীক্ষায় প্রক্সি দেওয়ার সময় সালমা খাতুন (২৬) নামের একজনকে হাতেনাতে ধরে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। একইসঙ্গে তাকে ২০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

গত কাল শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আওতাধীন আলমডাঙ্গা শাখার বিএ/বিএসএস পরীক্ষার্থী উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মারজাহান নিতু পরীক্ষায় হলে নিজে না উপস্থিত হয়ে সালমাকে পাঠান। পরে সালমাকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দণ্ড দেওয়া হয়।

নিতু আলমডাঙ্গা উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান এবং পৌর এলাকার বাবু পাড়ার মৃত কাজী কামালের মেয়ে কাজী।

দণ্ডপ্রাপ্ত সালমা খাতুন আলমডাঙ্গা পৌর এলাকার রাধিকাগঞ্জের জহুরুল ইসলামের মেয়ে।
এ বিষয়ে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কাজী মারজান নিতুর সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তার ফোন বন্ধ পাওয়ায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

দণ্ডপ্রাপ্ত সালমা খাতুনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে জানান আলমডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গণি মিয়া।

আলমডাঙ্গা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) রেজওয়ানা নাহিদ বলেন, পরীক্ষা চলাকালীন কেন্দ্র পরিদর্শনে গিয়ে এক ভুয়া পরীক্ষার্থীকে হাতেনাতে ধরা হয়। পরে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে এক বছরের কারাদণ্ড ও ২০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

আরএস
 

Link copied!