Amar Sangbad
ঢাকা বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর, ২০২২, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

লামায় রোপা আমনের বাম্পার ফলন কৃষক মুখে হাসি

লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি

লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধি

নভেম্বর ২৪, ২০২২, ০৩:৫৬ পিএম


লামায় রোপা আমনের বাম্পার ফলন কৃষক মুখে হাসি

বান্দরবানের লামা উপজেলার ৭ ইউনিয়ন ও একটি পৌর এলাকার মাঠে মাঠে ছেয়ে গেছে সোনালী ধানে। সর্বত্র মাঠেই ধান পেকে সোনালী রূপ ধারণ নিয়েছে। ইতোমধ্যে উপজেলার ৫০ ভাগই রোপা আমন ধান কাটা হলেও সব মাঠেই কম-বেশি ধান কাটা-মাড়াই চলছে। এবার রোপা আমনের বাম্পার ফলন হওয়ায় কৃষক-কৃষাণীদের মুখে হাসি ফুটেছে।

এলাকা ঘুরে দেখা যায়, ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের প্রভাব কাটিয়ে রোপা আমনের এমন বাম্পার ফলন দেখে বেশ খুশি তাঁরা। কৃষাণ-কৃষাণীর মুখে হাসি আর আনন্দের ঝিলিক চলতি মৌসুমের শুরুতে আশানুরূপ বৃষ্টিপাত না হলেও মাঝামাঝি ও শেষের দিগে ভাল বৃষ্টি হওয়ায় বিগত বছরের ব্যবধানে এবার রোপা আমন ধান ভাল হয়েছে। উঁচু নিচু সব জায়গাতেই প্রায় ধান চাষ করা হয়েছে।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, চলতি মৌসুমে অনাবাদী ও আবাদি ৩ হাজার ১শ ৮৪ হেক্টর জমির রোপা আমন চাষের ১৬ হাজার ৭  শত ২৫ মেট্রিক টন ধানের  ফলন আশা করা যাচ্ছে ।

মেউলারচর ও বৈইল্লারচর  ব্লকের কৃষক মোবারক হোসেন, মো. জসিম, আব্দুর রহিম, মো. রফিকুল ইসলাম জানান, এবছর রোপা আমন ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। আমরা আরো ১০/১৫ দিন আগে থেকে ধান কাঁটা-মাড়াই শুরু  করেছি ,এবার বাজারে ধানের দামও ভালো পেয়েছি। ঘরে ঘরে শুরু হয়েছে নবান্ন উৎসব। তৈরি হচ্ছে বিভিন্ন পিঠা পুলি ও পায়েশ।

অনেক কৃষক জানান, রোপা আমন ধানের উপর নির্ভর করে আলু, সরিষা রোপণসহ বিভিন্ন রবিশস্য চাষাবাদ করার লক্ষ্য রয়েছে। আর এ বছর শেষ পর্যন্ত ধানের বাজার মূল্য পড়ে না গেলে আমাদের এই লক্ষ্য পূরণ হবে । কৃষকেরা সরকারের কাছে ধানের ন্যায্য মূল্যও দাবী করেন।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা অভিজিত বড়ুয়া জানান, এবার আবহাওয়া অনুকূল থাকার কারণে উপজেলার ৭ ইউনিয়ন ও একটি পৌর এলাকায় রোপা আমন চাষের লক্ষ্যমাত্রা অনেক ছাড়িয়ে গেছে। আবার বাজেরে ধানের দাম ভালো থাকায় কৃষকের মুখে হাঁসি ফুটেছে।

লামা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা রতন চন্দ্র বর্মণ জানান,চলতি আমন মৌসুমে কৃষকদের আবাদের জন্য সরকারি প্রণোদনা হিসেবে উন্নত বীজ ও সার সরবরাহ করা হয়েছে। মৌসুমের শুরুতেই আমাদের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তারা প্রতিনিয়ত এলাকাভিত্তিক মাঠ পরিদর্শন, মাঠ দিবস, কৃষক সমাবেশ করে চাষিদের সঠিক সময়ে সেচ, সার ও বালাইনাশক প্রয়োগের পরামর্শ দেওয়ায় এবং আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় এ বছর রোপা আমনের বাম্পার ফলন হয়েছে। তিনি আরো জানান, এছাড়া এই ধান কেটে সরিষা আবাদ করে বোরো ধান চাষ করতে পারবেন কৃষকরা।

এসএম

Link copied!