Amar Sangbad
ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪,

দুদকের মামলায় তারেক-জোবায়দার মামলায় সাক্ষ্য হয়নি

আদালত প্রতিবেদক

আদালত প্রতিবেদক

মে ২৮, ২০২৩, ০৫:৩২ পিএম


দুদকের মামলায় তারেক-জোবায়দার মামলায় সাক্ষ্য হয়নি

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মামলায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও তার স্ত্রী ডা. জোবায়দা রহমানের বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে গতকাল (রবিবার) কোনো সাক্ষী আসেনি। ফলে আদালত সাক্ষ্যগ্রহণ পিছিয়ে সোমবার থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত টানা সাক্ষ্যগ্রহণের দিন ধার্য করেছেন। রবিবার (২৮ মে) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ মো. আছাদুজ্জামানের আদালত সাক্ষ্য গ্রহণের এসব দিন ধার্য করেন।

এ পর্যন্ত মামলায় তিনজনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়েছে। দুদকের পাবলিক প্রসিকিউটর মোশাররফ হোসেন কাজল এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ১৩ এপ্রিল তারেক-জোবায়দার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন আদালত। এ মামলায় ২০২২ সালের ১ নভেম্বর তারেক রহমান ও জোবায়দার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। বর্তমানে তাদের পলাতক হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ঘোষিত আয়ের বাইরে চার কোটি ৮১ লাখ ৫৩ হাজার ৫৬১ টাকার মালিক হওয়া এবং সম্পদের তথ্য গোপন ও জ্ঞাত-আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে ২০০৭ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর রাজধানীর কাফরুল থানায় মামলা করে দুদকের উপ-পরিচালক জহিরুল হুদা। মামলায় তারেক রহমান, জোবায়দা রহমান ও তারেক রহমানের শাশুড়ি ইকবাল মান্দ বানুকে আসামি করা হয়। এরপর ২০০৮ সালে এই তিনজনের বিরুদ্ধে দাখিল করা হয় অভিযোগপত্র।

এদিকে মামলা বাতিল চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেন জোবায়দা। ওই বছরই এ আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে মামলার কার্যক্রম স্থগিত করে রুল জারি করেন হাইকোর্ট। এর বিরুদ্ধে আপিল করলে আপিল বিভাগ হাইকোর্টের আদেশ বহাল রাখেন। তবে এ সংক্রান্ত চূড়ান্ত শুনানি শেষে ২০১৭ সালের ১২ এপ্রিল মামলা বাতিলের আবেদন খারিজ (রুল ডিসচার্জ) করে রায় দেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে ওই মামলায় আট সপ্তাহের মধ্যে জোবায়দাকে বিচারিক আদালতে উপস্থিত হতে নির্দেশ দেওয়া হয়।

উচ্চ আদালতের এ খারিজ আদেশের বিরুদ্ধে ওই বছরই লিভ টু আপিল করেন জোবায়দা। এরপর প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নেতৃত্বাধীন চার সদস্যের আপিল বেঞ্চ লিভ টু আপিল খারিজ করে হাইকোর্টের দেওয়া রায় বহাল রাখেন।

আরএস
 

Link copied!