Amar Sangbad
ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, ২০ মাঘ ১৪২৯

এবারও জাতীয় পুরস্কার পেলেন না শাকিব খান!

আকাশ নিবির

আকাশ নিবির

জানুয়ারি ৬, ২০২৩, ০৫:৩০ পিএম


এবারও জাতীয় পুরস্কার পেলেন না শাকিব খান!

দেশিয় চলচ্চিত্রের সুপারস্টার ধরা হয় শাকিব খানকে। দর্শক জনপ্রিয়তা বেশি এই নায়কের। অভিনয় আর স্ক্রিনপ্লেসহ বাণিজ্যিক ধারার ছবি মানেই আধিপত্য চোখে পড়ার মতো। তবে পরপর এই নায়কের হাতে উঠতে দেখা যায়নি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। এতে হতাশ হয়েছেন তার ভক্তকুল। তাদের দাবি কোন চলচ্চিত্র তেমনভাবে ব্যবসায়িক সফলতা না পেলেও তাদের হাতে কেন যাচ্ছে এই জাতীয় সম্মান। অনেক দুষছেন তার পারিবারিক বিয়ে, সংসার ভেঙে যাওয়ার বিষয়গুলোকে। একাধিক বিশ্বস্তসূত্রে জানা গেছে, হয়তোবা সেদিক থেকে এই নায়কের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছেন অনেকেই! নতুবা কেন এতো দক্ষ অভিনয় আর একাধিক ছবির সাফল্যের পর কেনই বা পাবেন না এই জাতীয় সম্মান।

২০২১ চলচ্চিত্রের সর্বোচ্চ সম্মাননা বা স্বীকৃতি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। প্রতি বছর ২৮টি ক্যাটাগরিতে এই পুরস্কার দেওয়া হয়। সেখানে নেই এই সুপারস্টার নায়কের পুরস্কার।  তবে এই বছর ‍‍`শ্রেষ্ঠ নৃত্য পরিচালক’ ক্যাটাগরিতে কোনো প্রার্থী যোগ্য বিবেচিত না হওয়ায় ২৭ ক্যাটাগরিতে ৩৪টি পুরস্কার দেওয়া হচ্ছে। সম্প্রতি জাতীয় পুরস্কার সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি চূড়ান্ত তালিকার অনুমোদন দিয়েছে।

এবার শ্রেষ্ঠ অভিনেতা বিভাগে যৌথভাবে পুরস্কার পাবেন মো. সিয়াম আহমেদ (মৃধা বনাম মৃধা) ও মীর সাব্বির মাহমুদ (রাতজাগা ফুল)। শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে যৌথভাবে আজমেরী হক বাঁধন (রেহানা মরিয়ম নূর) ও তাসনোভা তামান্না (নোনাজলের কাব্য) পুরস্কার পেতে যাচ্ছেন।

এবার শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র যৌথভাবে লাল মোরগের ঝুঁটি ও নোনাজলের কাব্য।

শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র পরিচালক রেজওয়ান শাহরিয়ার সুমিত (নোনাজলের কাব্য), শ্রেষ্ঠ অভিনেতা পার্শ্ব চরিত্রে এম ফজলুর রহমান বাবু (নোনাজলের কাব্য), শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী পার্শ্ব চরিত্রে শম্পা রেজা (পদ্মপুরাণ), শ্রেষ্ঠ অভিনেতা খল চরিত্রে জয়রাজ (লাল মোরগের ঝুঁটি)।

শ্রেষ্ঠ অভিনেতা কৌতুক চরিত্রে মিলন ভট্টাচার্য্য (মৃধা বনাম মৃধা), শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী আফিয়া তাবাসসুম (রেহানা মরিয়ম নূর), শিশুশিল্পী শাখায় বিশেষ পুরস্কার জান্নাতুল মাওয়া ঝিলিক (যা হারিয়ে যায়)।

শ্রেষ্ঠ সংগীত পরিচালক সুজেয় শ্যাম (যৈবতী কন্যার মন), শ্রেষ্ঠ গায়ক কে এম আবদুল্লাহ-আল-মুর্তজা মুহিন (শোনাতে এসেছি আজ-পদ্মপুরাণ), শ্রেষ্ঠ গায়িকা চন্দনা মজুমদার (দেখলে ছবি পাগল হবি-পদ্মপুরাণ), শ্রেষ্ঠ গীতিকার প্রয়াত গাজী মাজহারুল আনোয়ার (অন্তরে অন্তর জ্বালা-যৈবতী কন্যার মন), শ্রেষ্ঠ সুরকার সুজেয় শ্যাম (অন্তরে অন্তর জ্বালা-যৈবতী কন্যার মন)।

শ্রেষ্ঠ কাহিনিকার রেজওয়ান শাহরিয়ার সুমিত (নোনাজলের কাব্য), শ্রেষ্ঠ চিত্রনাট্যকার নূরুল আলম আতিক (লাল মোরগের ঝুঁটি), শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা তৌকীর আহমেদ (স্ফুলিঙ্গ)।

শ্রেষ্ঠ সম্পাদক সামির আহমেদ (লাল মোরগের ঝুঁটি), শ্রেষ্ঠ শিল্প নির্দেশক শিহাব নূরুন নবী (নোনাজলের কাব্য), শ্রেষ্ঠ চিত্রগ্রাহক দলগত-সৈয়দ কাশেফ শাহবাজি, সুমন কুমার সরকার, মাজহারুল ইসলাম রাজু (লাল মোরগের ঝুঁটি), শ্রেষ্ঠ শব্দগ্রাহক শৈব তালুকদার (রেহানা মরিয়ম নূর), শ্রেষ্ঠ পোশাক ও সাজসজ্জা ইদিলা কাছরিন ফরিদ (নোনাজলের কাব্য)। শ্রেষ্ঠ মেকআপম্যান দলগত-মো. ফারুখ, মো. ফরহাদ রেজা মিলন (লাল মোরগের ঝুঁটি)।

শ্রেষ্ঠ স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র আকা রেজা গালিব (ধর), শ্রেষ্ঠ প্রামাণ্য চলচ্চিত্রকার কাওসার চৌধুরী (বধ্যভূমিতে একদিন)।

এর আগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদানের জন্য গত ১৬ আগস্ট তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় ১৩ সদস্যের জুরি বোর্ড গঠন করে। জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের জন্য ২০২১ সালের মুক্তিপ্রাপ্ত ২১টি পূর্ণদৈর্ঘ্য, ১৭টি স্বল্পদৈর্ঘ্য ও ৭টি প্রামাণ্য চলচ্চিত্রসহ মোট ৪৫টি চলচ্চিত্র জমা পড়েছিল।

এবি

Link copied!