Amar Sangbad
ঢাকা রবিবার, ১৯ মে, ২০২৪,

বড়লেখায় গৃহবধূকে হারপিক খাইয়ে হত্যার অভিযোগ

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি

মে ২৭, ২০২৩, ০৬:২৬ পিএম


বড়লেখায় গৃহবধূকে হারপিক খাইয়ে হত্যার অভিযোগ

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় এক গৃহবধূকে দীর্ঘ দিন জ্বালাতন করার পর কাতার প্রবাসী স্বামী শশুড়বাড়ির লোকজন মিলে জোরপূর্বক হারপিক সেবন করিয়ে হত্যার  অভিযোগ উঠেছে। দীর্ঘ দিন অসুস্থ থাকার পর ২৫ মে রাত ১০ টায় পারুল আক্তার সাবিয়া( ২৫) নামে এই গৃহবধূ পিতালয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃতু বরন করেন। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার মর্গে প্রেরন করেন। এনিয়ে থানায় মামলা হয়েছে।

সরেজমিন বড়লেখা উপজেলার চরগ্রামের মজনু মিয়ার বাড়িতে গেলে জানা যায়  মজনু মিয়া মেয়ে পারুল আক্তার সাবিয়া (২৫) এর  ইসলামী সরিয়ত মোতাবেক ব ২০১৭ সালের শেষের দিকে বিয়ে হয়।  পাশবর্তী দক্ষিণ শাহবাজপুর ইউনিয়নের দেউল গ্রামের আব্দুল কাদির এর ছেলে কাতার প্রবাসী মাতাব উদ্দিন এর সাথে। বিয়ের প্রায় ৭ বছর হয়   তাদের সংসারে  ৫ বছরের মাহাদী হোসাইন নামে একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। 

গত ১১ মার্চ স্বামী মাতার উদ্দিন সহ তার পরিবারের অন্য সদস্যরা  মিলে জোর করে হারপিক খাইয়ে দেন সাবিয়াকে।  ভাইয়েরা তার বোনকে তাদের বাড়িতে এনে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা করা হয়। অবস্থার অবনতি হলে  সপ্তাহ দিন আগে পারুল আক্তার সাবিয়াকে বাড়িতে নিয়ে আসেন। 

এব্যাপারে বড়লেখা থানার অফিস ইনচার্জ ইয়ারদৌস হাসান মুঠোফোন জানান নিহত পারল আক্তার সাবিয়ার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার মর্গে প্রেরন করা হয়ে মামলার প্রক্রিয়া চলছে।  

আরএস
 

Link copied!