Amar Sangbad
ঢাকা রবিবার, ১৪ জুলাই, ২০২৪,

ডিএমপি কার্যালয় গেইটে আটক

বিকেলে আটক সন্ধ্যায় মুক্তি জামায়াতের ৪ আইনজীবী

মো. মাসুম বিল্লাহ

মে ২৯, ২০২৩, ০৯:১৬ পিএম


বিকেলে আটক সন্ধ্যায় মুক্তি জামায়াতের ৪ আইনজীবী

রাজধানীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করার অনুমতির জন্য ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কার্যালয়ে আবেদন জমা দিতে যাওয়ার সময় বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী ৪ সদস্যের আইনজীবী প্রতিনিধি দলকে ডিএমপি কার্যালয়ের গেট থেকে আটক করে পুলিশ। 

সোমবার (২৯ মে) বিকেলে তাদের আটক করে ডিবি কার্যালয়ে নেওয়া হয়। এরপর তাদের কাছ থেকে কর্মসূচি পালনে লিখিত আবেদন জমা নিয়ে আইনজীবীদের মুক্তি দেওয়া হয় বলে জানান ঢাকা দক্ষিণ জামায়াতের মিডিয়া বিভাগের আশরাফুল আলম ইমন। এ নিয়ে মহানগর দক্ষিণের আমীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের আমীর নূরুল ইসলাম বুলবুল তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ডিএমপি কার্যালয়ের গেট থেকে  আমাদের আইনজীবীদের গ্রেফতার করে সরকার দেশের রাজনৈতিক ইতিহাসে এক নিকৃষ্টতম নজির স্থাপন করেছে ।

আটক চার নেতা হলেন, সুপ্রিম কোর্ট বারের সাবেক সহসম্পাদক অ্যাডভোকেট সাইফুর রহমান, সাবেক সহসভাপতি ড. গোলাম রহমান ভুইয়া, সাবেক সিনিয়র সহসভাপতি অ্যাডভোকেট আব্দুল বাতেন ও অ্যাডভোকেট জালাল উদ্দীন ভুইয়া। উল্লেখ্য, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধ, জামায়াতের আমির ডা. শফিকুর রহমানসহ জাতীয় নেতা ও ওলামায়ে কেরামের মুক্তি এবং কেয়ারটেকার সরকারব্যবস্থা প্রতিষ্ঠার দাবিতে আগামী ৫ জুন সোমবার বিকেল ৩টায় জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের উত্তর গেট থেকে বিক্ষোভ মিছিল করার ঘোষণা দেয় জামায়াতের ঢাকা মহানগরী শাখা। এ বিষয়ে সহযোগিতার আবেদন নিয়ে জামায়াতের প্রতিনিধি দল বিকেলে ডিএমপি কার্যালয়ে যায়।

ডিএমপি কার্যালয় গেইট থেকে প্রতিনিধি দলকে আটকে ক্ষোভ

এ ঘটনায় জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের আমীর নূরুল ইসলাম বুলবুল উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আগামী ৫ জুনের কর্মসূচি পালনে সহযোগিতা চেয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের কার্যালয়ে আবেদন জমা দিতে গেলে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের ৪ সদস্যের প্রতিনিধি দলকে সোমবার বিকেল ৪-৩০ মিনিটে এডিসি হারুন অর রশিদ ও বিপ্লব কুমার সরকারের নেতৃত্বে ডিএমপি কার্যালয়ের গেট থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আমি এ অন্যায় গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। বিগত ১৫ বছর যাবত বর্তমান ক্ষমতাসীন ভোটারবিহীন অবৈধ সরকার ধারাবাহিকভাবে জামায়াতের ওপর জুলুম-নির্যাতন চালিয়ে আসছে। জামায়াতে ইসলামীর আমীর, নায়েবে আমীর, সেক্রেটারি জেনারেল, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেলসহ শীর্ষ অনেক নেতৃবৃন্দকে দীর্ঘদিন যাবত কারাগারে আটকে রেখেছে। পুলিশের সহযোগিতা চাইতে গিয়ে ডিএমপি কার্যালয়ের গেট থেকে গ্রেফতার করে বর্তমান আওয়ামী সরকার বাংলাদেশের রাজনৈতিক ইতিহাসে এক নিকৃষ্টতম নজির স্থাপন করেছে। তারা একদিকে গণতন্ত্র ও নির্বাচনের কথা বলে, অপরদিকে বিরোধী রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীদেরকে গ্রেফতার করে কারাগারে আটক রাখে। প্রকৃতপক্ষে তারা গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না।

আরএস

 

Link copied!