Amar Sangbad
ঢাকা শুক্রবার, ০১ মার্চ, ২০২৪,

সোনারগাঁওয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগে গ্রেপ্তার ৪

মো. মাসুম বিল্লাহ

জুন ৭, ২০২৩, ০৫:০৮ পিএম


সোনারগাঁওয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগে গ্রেপ্তার ৪

নারায়নগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলার বরিবাড়ী এলাকায় এক শিল্পপ্রতিষ্ঠানে ভাংচুর চালিয়ে চাদা দাবি করার অভিযোগে ৪ ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তাদের সোনারগাঁও  থাণায় নেয়া হয়েছে। 

পুলিশ জানায়, উপজেলার সাদীপুর ইউনিয়ন বরিবাড়ী এলাকায় মুনতাহা নামের একটি স্টীল লিঃ নামের একটি শিল্প প্রতিষ্ঠানে আজ দুপুরে ১০/১৫ জনের একদল সন্ত্রাসী মেইন গেট ভাংচুর চালিয়ে মোটা অংকের টাকা চাদা দাবি করে। এসময় তারা কোম্পানির মালামাল নেয়ার কয়েকটি ট্রাক ভাংচুর চালিয়ে ব্যাপক ক্ষতি করে। এসময় দায়িত্বে থাকা কোম্পানির লোকজন পুলিশকে খবর দিলে ঘটনাস্থল থেকে অন্যান্য চাদাবাজ পালিয়ে গেলেও নাজমুল মিয়া,আল-আমীন মিয়া, মোস্তকিন মিয়া ও জোনায়েদ মিয়া নামের ৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

তাদের মধ্যে নাজমুল মিয়া সনমান্দী ইউনিয়ন দৌলরদী গ্রামের মৃত জিয়াউল হক সবুজের পুএ, আল-আমীন মিয়া চেঙ্গাইন এলাকার মুসা মিয়ার পুএ,মোস্তাকিম মিয়া একই এলাকার রোমান মিয়ার পুএ ও জোনায়েদ মিয়া বাতেন মিয়ার ছেলে। 
তাদেরকে সোনারগাঁও থানা হাজতে রাখা হয়েছে।  তাদের সহ জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

লিখিত অভিযোগের বাদি মুনতাহা স্টীল মিলের ম্যানাজার মিনহাজ উদ্দীন বলেন, সন্ত্রাসী নাজমুল ও আল আমিনের নেতৃত্বে দীর্ঘ ১০/১৫ দিন যাবৎ আমাদের প্রতিষ্ঠানের মুল গেটের সামনে এসে গালাগালি সহ ভয়ভীতি ও মোটা অংকের টাকা চাদা দাবি করে আসছে।আমরা এবিষয়ে এলাকার স্হানীয় গন্যমান্য ব্যক্তি সহ থানায় অবহিত করি। এই অবহিত করাকে কেন্দ্র করে আজ বুধবার  দুপুরে  নাজমুল মিয়ার নেতৃত্বে ১৫/২০ জনের একদল সন্ত্রাসী ২ টি লেগুনা পরিবহন দিয়ে মেইন গেটের সামনে এসে তাদের হাতে থাকা লোহার রড,কাঠের লাঠি সহ দেশীয় তৈরি অস্ত্র নিয়ে গেইট ও গেইটের সামনে থাকা মালগাড়ী ভাংচুর চালিয়ে পুনরায় চাদা দাবি করে। নিরুপায় হয়ে আমরা পুলিশকে জানাই।পরে পুলিশ এসে ঘটনাস্থল থেকে ৪ চাঁদাবাজকে আটক করেছে। বাকী চাঁদাবাজদের আটক ও শাস্তির দাবি জানান তিনি।

নারায়ণগঞ্জ জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খ সাকেল শেখ বিল্লাল হোসেন জানান, মুনতাহা স্টীল নামের এক প্রতিষ্ঠানে ভাংচুর চালানোর ঘঠনায় ৪ জনকে আটক করা হয়েছে। বাকী জড়িতদের গ্রেফতার করার জন্য কাজ করছে পুলিশ। 

আরএস

Link copied!