Amar Sangbad
ঢাকা শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪,

রাবি উপাচার্য

শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন হলে বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে

রাবি প্রতিনিধি

রাবি প্রতিনিধি

মার্চ ১, ২০২৪, ০৭:২৬ পিএম


শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন হলে বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে

শিক্ষক নিয়োগ সম্পন্ন হলে রাজশাহীসহ সারাদেশের পাঁচ বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উপাচার্য অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তার।

এ সময় রাজশাহীসহ বিভাগীয় শহরগুলোর মধ্যে ঢাকা, রংপুর, চট্টগ্রাম ও খুলনার নাম উল্লেখ করেন তিনি।

শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৪টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের তাজউদ্দীন আহমদ সিনেট ভবনে ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

এ সময় তিনি বলেন, ‍‍`শিক্ষক স্বল্পতার কারণে আমরা বিভাগীয় শহরগুলোতে ভর্তি পরীক্ষা নিতে পারছি না। তবে এই সংকট দূর করে বিভাগীয় শহরে ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার প্রস্তুতি চলছে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে উপাচার্য বলেন, ভর্তি পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সার্বিকভাবে সচেষ্ট আছে। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি প্রক্রিয়া অত্যন্ত স্বচ্ছ। এখানে কোন ধরনের জালিয়াতি বা কারসাজির সুযোগ নেই। গত বছরগুলোতে যারা জালিয়াতিতে জড়িয়েছিল তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সদা সজাগ আছে।

উপাচার্য বলেন, ভর্তিচ্ছুদের নিকট থেকে যেন মেস মালিকগণ অতিরিক্ত অর্থ আদায় করতে না পারে সে লক্ষ্যে প্রক্টর অফিস মেস মালিক সংগঠনের সাথে আলোচনা সম্পন্ন করেছে। ক্যাম্পাস ও তৎসংলগ্ন এলাকায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টরের বিশেষ নিরাপত্তা ও ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা চালু থাকবে।

তিনি আরও বলেন, অসাধু চক্রের সদস্যদের তাৎক্ষণিক শাস্তি বিধানে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত ও শান্তিশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী সার্বক্ষণিক দায়িত্ব পালন করবে। পরীক্ষা চলাকালে রাবি চিকিৎসা কেন্দ্র পরিচালিত একটি মেডিকেল টিম কাজ করবে। সার্বক্ষণিকভাবে ৪টি অ্যাম্বুলেন্স থাকবে। এছাড়াও কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশন কর্তৃক পরিচালিত ২ সদস্যের একটি মেডিকেল টিম এবং ২টি অ্যাম্বুলেন্স চিকিৎসা সহায়তা প্রদান করবে। এছাড়াও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ১টি অ্যাম্বুলেন্স ও ২ সদস্যের মেডিকেল টিম কাজ করবে।

অভিভাবকদের সুবিধার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, পরীক্ষা চলাকালে শুধু অভিভাবকদের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন স্থানে ১১টি টেন্ট স্থাপন করা হচ্ছে। প্রতিটি টেন্টে অভিভাবকদের বসার জন্য ২০০টি করে চেয়ার থাকবে। বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের সাধারণভাবে ব্যবহারের জন্য ১১টি স্থানে ওয়াশরুমের ব্যবস্থা থাকছে।

সংবাদ সম্মেলনে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক সুলতান-উল-ইসলাম ও অধ্যাপক হুমায়ুন কবির, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক তারিকুল হাসান, ছাত্র উপদেষ্টা অধ্যাপক জাহাঙ্গীর আলম সাউদ, প্রক্টর অধ্যাপক আসাবুল হক, জনসংযোগ দপ্তরের প্রশাসক অধ্যাপক প্রদীপ কুমার পান্ডে, বিভিন্ন অনুষদ অধিকর্তা, বিভাগীয় প্রধান উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, আগামী ৫ থেকে ৭ মার্চ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) স্নাতক ১ম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এ বছর ভর্তি পরীক্ষায় এ, বি এবং সি ইউনিটের কোটাসহ মোট ৪ হাজার ৪৩৮টি আসনের বিপরীতে মোট ১ লক্ষ ৮৫ হাজার ৬৮০ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করবেন। এ ইউনিটে পরীক্ষার্থী ৬৯ হাজার ৫২৭ জন, বি ইউনিটে ৩২ হাজার ৬১৪ জন এবং সি ইউনিটে ৭০ হাজার ৯৭৬ জন।

ইএইচ

Link copied!