Amar Sangbad
ঢাকা শনিবার, ২৫ মে, ২০২৪,

প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থা বনাম বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থা

সূচনা রানী রায়

সূচনা রানী রায়

সেপ্টেম্বর ৯, ২০২৩, ০৭:৩১ পিএম


প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থা বনাম বর্তমান  শিক্ষা ব্যবস্থা

প্লেটো গ্রিসের খ্রিস্টপূর্ব (৪২৭ - ৩৮৪) বিশ্ব বিখ্যাত গ্রীক দার্শনিক। প্লেটো The Republic গ্রন্থে এই শিক্ষা তত্ত্ব নিয়ে আলোচনা করেন। প্লেটো শিক্ষাব্যবস্থাকে দু’টি প্রধান স্তরে বিভক্ত করেছেন। 

যেমন- ১) প্রাথমিক শিক্ষা ও২) উচ্চতর শিক্ষা।

প্লেটোর মতে, প্রাথমিক শিক্ষার বয়ঃসীমা হবে শৈশব থেক ২০ বছর পর্যন্ত। প্রাথমিক শিক্ষা প্রধানত দু’টি পর্যায়ে বিভক্ত থাকবে। যথা-ক) সঙ্গীতমূলক খ) শিক্ষামূলক  যেমন- সাহিত্যের শ্রেষ্ঠ অবদান কবিতা, গান, গঠনমূলক শিল্প ইত্যাদির চর্চার মধ্যদিয়ে শিশুরা প্রাথমিক জ্ঞান অর্জন করবে।খ) ব্যায়মমূলক শিক্ষা

ব্যায়মমূলক শিক্ষাব্যবস্থায় অপ্রাপ্তবয়স্ক শিক্ষার্থীগণ শারীরিক ব্যায়াম বা দেহচর্চার মধ্যদিয়ে নিয়মানুবর্তিতা ও আত্মসংযম আয়ত্ত করতে শিখবে।

প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থায় উচ্চতর শিক্ষা তিনটি স্তরে বিভক্ত। যথা-ক) ২০ থেকে ৩০ বছর এ সময় গণিত, জ্যামিতি, সঙ্গীত ও জ্যোতিশাস্ত্র শিক্ষা করতে হবে। খ) ৩০ থেকে ৩৫ বছর এ পর্যায়ে জ্ঞান অর্জন অন্তর্ভূক্ত থাকবে।গ) ৩৫ থেকে ৫০ বছর।এ অবস্থায় শিক্ষার্থীগণ রাষ্ট্রের কাজে অংশগ্রহণ করবে।দুই বছর মেয়াদি মাধ্যমিক এবং দুই বছর মেয়াদি উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় শিক্ষার জন্য রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ দপ্তর। শিক্ষার সাহায্যে ন্যায়-নীতি প্রতিষ্ঠারক্ষা হয়।

বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থা-

বর্তমান অধুনিক শিক্ষাব্যবস্থা  চালু রয়েছে । বৈজ্ঞানিকতার আর্বিভাব বেশি বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থায়। আধুনিক যুগের শিক্ষায় বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীর স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও শরীরচর্চার মাধ্যমে শারীরিক বিকাশ ঘটানো হয়।সঠিক জ্ঞান অর্জনই শিক্ষার্থীকে প্রকৃত মানুষ করে গড়ে তুলবে। আন্তর্জাতিক শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি বিষয়ক সংস্থা (UNESCO)জীবনব্যাপী শিক্ষা। শিক্ষার অন্যতম উদ্দেশ্য কর্ম দক্ষতা অর্জন। শিক্ষার্থীদের বৃত্তি নির্বাচনে সাহায্য করে, স্বাবলম্বী হওয়ার শিক্ষা দেয়।

প্লেটোর শিক্ষাব্যবস্থা থেকে বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থায় যা যা যোগ হয়েছে -

পরিপূর্ণ মানুষ হয়ে ওঠা: প্লেটো অধিবিদ্যা ও জ্যোতিষশাস্ত্রের  অন্তর্ভুক্তি তাঁর প্রস্তাবিত শিক্ষাব্যবস্থায় জ্যোতিবিদ্যা, দর্শন  প্রভৃতি পাঠ্য বিষয়ের সাথে বর্তমান বিশ্ব একাত্মতা ঘোষণা করেছে। প্লেটো মনে করতেন যে শিশুদের শিক্ষা কারিকুলাম নির্ধারণে সর্তক হওয়া প্রয়োজন।আদর্শ জীবন গঠনের জন্য নীতিবোধ ও নৈতিকতা উৎকর্ষের দিকটি প্লেটো অধিক গুরুত্ব দিয়েছেন।

তিনি পুরুষদের মতো নারীদেরও শিক্ষার প্রয়োজনীয়তা উপলব্ধি করেছিলেন, যা বর্তমানকালে স্বীকৃতি লাভ করেছে। প্লেটো শিক্ষাব্যবস্থার মধ্যে  সংগীত, ব্যায়ম ও শরীর চর্চার বিষয়ক প্রাথমিক শিক্ষার অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। 

প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থা থেকে বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থার পরিবর্তিত রূপ-

প্লেটো নিদিষ্ট বয়স অনুযায়ি শিক্ষা অর্জন ভাগ করে দিয়েছেন ।এক এক বয়সে তারা ভিন্ন ভিন্ন শিক্ষা অজর্ন করবে। যা বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থার সম্পূর্ণ বিপরীত । আধুনিকতা দেখা যায় বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থায় যা প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থায় ছিলনা। বর্তমান বিদয়ালয়ে শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও টিকা প্রদান করা হয় যা পূর্বে ছিলনা। বৃওি প্রদানের ব্যবস্থাও ছিল না প্লেটোর শিক্ষা ব্যবস্থায় যা বর্তমানে চালু করা হয়েছে।

আরএস
 

Link copied!